হেফাজত নেতা মামুনুল হককে আরো ৫ দিনের রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

গণমাধ্যমে প্রকাশিত ফোনালাপ গুলো সত্য বলে স্বীকার করলেন মামুনুল হক। ঢাকার অদূরে সোনারগাঁও রয়েল রিসোর্টে নারীসহ আটক হওয়া হেফাজত নেতা মামুনুল হকের বেশকিছু ফোনালাপ ফাঁস হয়। আজ জাতির উদ্দেশ্যে দেওয়া ফেসবুক লাইভ বক্তব্য শেষ ফোনালাপ কলো সত্য বলে স্বীকার করেছেন মামুনুল হক।

তিনি বলেছেন কারো ব্যক্তিগত ফোন আলাপ প্রকাশ করাটা মানবাধিকার লঙ্গন। উনার স্ত্রীর সঙ্গে ব্যক্তিগত কথাবার্তা বলা মিডিয়ায় প্রকাশ করাটা উচিত হয়নি। এ ব্যাপারে তিনি মামলা করারও প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।

সোনারগাঁও রিসোর্ট এর ঘটনা মামুনুল হকের সঙ্গে যে আচরণ করা হয়েছে তাতে মানবাধিকার লংঘন হয়েছে বলে তিনি দাবি করছেন। মামুনুল হক দেশীয় ও আন্তর্জাতিক সকল মানবাধিকার সংগঠনগুলোকে এ ব্যাপারে সোচ্চার হওয়ার আহ্বান জানান।

তিনি আরো উল্লেখ করেন সোনারগাঁও হোটেলে ফেসবুক লাইভে উনার স্ত্রীর নাম আমিনা তইবা বলেছিলেন তা মিথ্যে ছিল উনার স্ত্রীর সঠিক নাম জননেতা জনাব জান্নাত আরা ঝনা। গণমাধ্যমে প্রকাশিত ফোনালাপ গুলো সত্য বলে স্বীকার করলেন মামুনুল হক।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here